আকাশপথে যোগাযোগ বাড়াতে বাংলাদেশের সঙ্গে সরাসরি ফ্লাইট চালুর আগ্রহ প্রকাশ করেছে ভিয়েতনাম।

অস্ট্রেলিয়া সফররত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাত করে ভিয়েতনামের ভাইস প্রেসিডেন্ট দাং থি নাও থিন তার সরকারের এই আগ্রহের কথা প্রকাশ করেন।

শুক্রবার সকালে সিডনির ইন্টারকন্টিনেন্টালে গিয়ে শেখ হাসিনা সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাত করেন দাং থি নাও থিন। পরে পররাষ্ট্র সচিব শহীদুল হক ওই বৈঠকের বিষয়ে সাংবাদিকদের জানান।

শহীদুল হক বলেন, “তারা সরাসরি এয়ার কানেকটিভিটি ও এয়ার সার্ভিস প্রতিষ্ঠা করতে আগ্রহী।”

বাংলাদেশ ও ভিয়েতনামের মধ্যে বাণিজ্যের পরিমাণ সাম্প্রতিক বছরগুলোকে বাড়লেও তা আরও বাড়ানোর ওপর জোর দিয়েছেন ভাইস প্রেসিডেন্ট।
২০১৬-১৭ অর্থবছরে বাংলাদেশ ৬৬ দশমিক ৪৪ মিলিয়ন ডলারের পণ্য ভিয়েতনামে রপ্তানি করেছে। ওই বছর ভিয়েতনাম থেকে ৪১২ দশমিক ২০ মিলিয়ন ডলারের পণ্য আসে বাংলাদেশে।

পররাষ্ট্র সচিব জানান, জাতিসংঘের অস্থায়ী সদস্য পদে নির্বাচনে ভিয়েতনামের পক্ষে বাংলাদেশের সমর্থনও চেয়েছেন দাং থি নাও থিন।

তিন দিনের সফরে শুক্রবার সকালেই সিডনিতে পৌঁছান প্রধানমন্ত্রী। সন্ধ্যায় তিনি যোগ দেবেন গ্লোবাল সামিট অন উইমেনে। নারী নেতৃত্বে সফলতার স্বীকৃতি হিসেবে সেখানে তাকে সম্মানজনক ‘গ্লোবাল উইমেনস লিডারশিপ অ্যাওয়ার্ড’ দেওয়া হবে।

এজন্য প্রধানমন্ত্রীকে অভিনন্দন জানিয়ে ভিয়েতনামের ভাইস প্রেসিডেন্ট বাংলাদেশে নারীর ক্ষমতায়নে শেখ হাসিনার সরকারের প্রশংসা করেন।

অন্যদের মধ্যে পররাষ্ট্র মন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী, প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের সচিব সাজ্জাদুল হাসান এবং প্রধানমন্ত্রীর প্রেসসচিব ইহসানুল করিম এ সময় উপস্থিত ছিলেন।